ভুল চিকিৎসায় ষাড়গরুর মৃত্যুর অভিযোগ

  • স্টাফ রিপোর্টার

  • মৌলভীবাজার সদর উপজেলার গয়ঘর এলাকায় ভুল চিকিৎসায় ষাড়গরুর মৃত্যুর অভিযোগ পাওয়া গেছে। এ বিষয়ে জেলা প্রাণী সম্পদ বিভাগে লিখিত অভিযোগ করা হয়েছে।

  • ষাড়গরুর মালিক জিলা মিয়া জানান ২৮ জুন ২০১৮ ইং তারিখ সকাল থেকে তার ষাড়গরুটি খাওয়া কমিয়ে দিয়েছে, এ সমস্যার জন্য মৌলভীবাজার প্রাণী সম্পদ বিভাগের এক চিকিৎসকের সহকারী অরুণ নামের এক ব্যাক্তিকে মোবাইল ফোনে জানালে ওইদিন বিকেল ৩টার সময় অরুন ষাড়গরুকে ৩টি ইনজেকশন পুষ করেন ও কিছু খাওয়ার ঔষধ দিয়ে চলে আসেন।

  • চিকিৎসায় অসুস্থ গরুটির কোন উন্নতি না হওয়ায় ২৯ জুন মৌলভীবাজার প্রাণী সম্পদ বিভাগে কর্মরত জাকির হোসেন নামের এক মাঠ সহকারীকে মোবাইল ফোনে জানালে ওইদিন সকাল ১১ টায় বাড়িতে যান। এ সময় জিলা মিয়া ষাড় গরুটিকে ভাল করে চিকিৎসা করার জন্য অনুরোধ জানান। তিনিও গরুটিকে ৩টি ইনজেকশন পুষ করেন। ওই রাতে আরো খারাপের দিকে যেতে থাকে। রাতে জাকির হোসেনকে মোবাইল ফোনে বিষয়টি জানান। পরে রাত ২টার দিকে গরুর চামরা ফেটে মৃত্যু হয়।

  • এ বিষয়ে জেলা প্রাণী সম্পদ বিভাগের ভেটেনারী সার্জনের কাছে ৮ জুলাই লিখিত অভিযোগ নিয়ে গেলে কেউ অভিযোগটি গ্রহন করেননি। পরে জিলা মিয়া মৌলভীবাজার প্রধান ডাক ঘরের মাধ্যমে রেজিষ্ট্রি করে অভিযোগ পাঠান।

  • জিলা মিয়া অভিযোগে উল্লেখ করেন কর্জ করে অরুনকে ৫’শ টাকা ও জাকির হোসেনকে আরো ৫’ টাকা দেন। গরুটির মূল্য অনুমান ৮০ হাজার টাকা হবে অভিযোগে উল্লেখ করেন। ভুল চিকিৎসায় গরুটি মারা যাওয়ায় মারাত্মকভাবে ক্ষতিগ্রস্থ হয়েছেন তিনি।  প্রায় আড়াই বছর পূর্ব থেকে ষাড়গরুটি লালন পালন করে আসছেন আগামী ঈদুল আজহার বাজারে বিক্রি করার জন্য।

শেয়ার করুন