“মৌলভীবাজারে ঝুঁকিপূর্ণ স্থানে বালু উত্তোলন বন্ধ করা ও নদী খননের দাবিতে মানববন্ধন : নদী ভাঙনের ভয়, হুমকির মুখে ২ ইউনিয়নের জনগন”

খ ম জুলফিকার, মৌলভীবাজার থেকে::

মৌলভীবাজারের রাজনগরন উপজেলার কামরচাক-টেংরা ইউনিয়নের মনু নদীর ঝুঁকিপূর্ণ স্থান থেকে বালু উত্তোলন বন্ধ করা ও নদী খননের দাবীতে তারাপাশা বাজারস্থ চৌমোহনা চত্বরে ইসলামী ছাত্রসেনা টেংরা-কামারচাক ইউনিয়নের যৌথ আয়োজনে প্রায় দুই ঘন্টাব্যাপি মানববন্ধন করেছে।

৯ জুন (রোববার) বিকালে এ মানববন্ধন অনুষ্ঠিত হয়। মুহাম্মদ আব্দুল হকের সভাপতিত্বে ও হাফেজ রিয়াজ উদ্দিনের সঞ্চালনায় আয়োজিত মানববন্ধনে প্রধান অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন- শা বি, প্র,বি অধ্যাপক মুহাম্মদ এমদাদুল হক। প্রধান আলোচক ছিলেন- ইসলামী ছাত্রসেনার কেন্দ্রীয় সাংগঠনিক সম্পাদক মুহাম্মদ ওলিউর রহমান। সংহতি প্রকাশ করে বক্তব্য রাখেন- দুর্ণীতি মুক্তকরণ বাংলাদেশ ফোরাম মৌলভীবাজার জেলা শাখার সভাপতি মাহমুদুর রহমান মাহমুদ, সহ-সাধারণ সম্পাদক সাংবাদিক মশাহিদ আহমদ, সাংগঠনিক সম্পাদক সাংবাদিক চিনু রঞ্জন তালুকদার, মোঃ আব্দুর রাজ্জাক (মাস্টার), সমাজকর্মী জয়নাল আবেদীন শিবু, মাওঃ আব্দুল কলিম খান, হাফেজ শফিকুল ইসলাম, আলিম আল মুনিমসহ স্থানীয় বিভিন্ন শ্রেণী পেশার নেতৃবৃন্দ।

মানববন্ধনে বক্তারা বলেন- মনু নদীর ঝুঁকিপূর্ণ স্থান থেকে বালু উত্তোলনের ফলে তারাপাশার পশ্চিমে বাঁধ ভাঙ্গার আশংকায় অত্র এলাকার হাজার হাজার মানুষ এর বসত ভিটা ও কৃষিক্ষেত আজ হুমকির মুখে। যার বাস্তবতা হলো, ২০১৮ সালের বন্যার ফলে এ ইউনিয়নের মানুষ ঈদের নামাজ আদায় করতে পারেনি। দীর্ঘ এক বৎসর পার হওয়ার পরও বাস্তবমুখী কোন প্রদক্ষেপ নেওয়া হয় নাই। যার কারনে নতুন করে তারা পাশা টেংরা সড়কের ব্রীজটিও হুমকির মুখে পড়েছে। যে কোন সময় বড় ধরণের দুর্ঘটনা ঘটতে পারে। বক্তারা সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষকে জনগনের স্বার্থসংশ্লিস্ট উক্ত বিষয়ে দ্রুত কার্যকরি প্রদক্ষেপ গ্রহণের জোর দাবি জানান।

শেয়ার করুন